শেষ হলো ডিসি সম্মেলন

প্রথম সকাল ডটকম: শেষ হলো তিনদিনের জেলা প্রশাসক (ডিসি) সম্মেলন। গত মঙ্গলবার শুরু হওয়া সম্মেলন বৃহস্পতিবার বিকেল সোয়া ৪টায় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সঙ্গে সমাপনী অধিবেশনের মাধ্যমে শেষ হয়।

সমাপনী অধিবেশন শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিবের সাংবাদিকদের ব্রিফ করার রেওয়াজ থাকলেও গত বছরের মতো এবার তা হয়নি। তিনদিনের সম্মেলনে ২২টি অধিবেশন ছিল।

এর মধ্যে ছিল উদ্বোধনী অধিবেশন, প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে মুক্ত আলোচনা, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ ও সমাপনী অধিবেশন। এছাড়া বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগের সঙ্গে ছিল ১৮টি কার্য-অধিবেশন।

জেলা প্রশাসক সম্মেলনের প্রতিটি কার্য-অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম। সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়সহ মোট ৫২টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগের সঙ্গে মতবিনিময় করেন ডিসিরা। মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী, উপদেষ্টা, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রী, সিনিয়র সচিব, সচিব ও সংস্থা প্রধানরা অংশ নেন।

সরকারের নীতি-নির্ধারক ও জেলা প্রশাসকদের মধ্যে সামনা-সামনি মতবিনিময় এবং প্রয়োজনীয় দিক-নির্দেশনা দেয়ার জন্য প্রতি বছর ডিসি সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এবার তিন দিনব্যাপী জেলা প্রশাসক সম্মেলন শুরু হয় গত মঙ্গলবার (২৪ জুলাই)। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার কার্যালয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করেন।

বুধবার সন্ধ্যার পর বঙ্গভবনের দরবার হলে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ ও দিক-নির্দেশনা গ্রহণ করেছেন জেলা প্রশাসকরা। এবার জেলা প্রশাসক সম্মেলনে জেলা প্রশাসক ও বিভাগীয় কমিশনারদের কাছ থেকে পাওয়া ৩৪৭টি প্রস্তাব ছাড়াও তাৎক্ষণিক বিভিন্ন প্রস্তাব নিয়ে অধিবেশনগুলোতে আলোচনা হয়েছে বলে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জানা গেছে।

এবার ডিসি সম্মেলনে আলোচনায় ভূমি ব্যবস্থাপনা, আইন-শৃঙ্খলা, স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, ত্রাণ পুনর্বাসন কার্যক্রম, স্থানীয় পর্যায়ে কর্মসৃজন, দারিদ্র বিমোচন, সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী কার্যক্রম, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির ব্যবহার, শিক্ষার মান উন্নয়ন, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ, পরিবেশ সংরক্ষণ ও দূষণ রোধ, ভৌত অবকাঠামো উন্নয়ন এবং উন্নয়ন কার্যক্রমের বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও সমন্বয়- এই বিষয়গুলো এসেছে বলেও জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের একজন কর্মকর্তা।

This website uses cookies.