৯৯৯-এ ফোন করে উদ্ধার হলেন কমোডে আটকা নারী

প্রথম সকাল ডটকম: রাজধানীর উত্তরার একটি বাসায় হাই কমোডে আটকে পড়ার পর ফায়ার সার্ভিস, অ্যাম্বুলেন্স ও জরুরি পুলিশি সেবা ৯৯৯-এর সাহায্য নিতে হয়েছে এক বৃদ্ধা নারীকে।

শুক্রবার মধ্য রাতে কমোডে আটকে পড়ার পর জরুরি সেবার জাতীয় হেল্প ডেস্ক ৯৯৯ নম্বরে ফোন করে ফায়ার সার্ভিসের সাহায্যে উদ্ধার পান ওই নারী।

.পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ৫৫ বছর বয়সী ওই নারী অতিরিক্ত ওজনজনিত সমস্যায় ভুগছিলেন। আটকে পড়ার পর পরিবারের সদস্যরা উদ্ধারের চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হওয়ার পর ৯৯৯ নম্বরে ফোন করে ফায়ার সার্ভিসের সহযোগিতা চান।

উত্তরা ফায়ার স্টেশনের সিনিয়র স্টেশন অফিসার শফিকুল জানান, ৯৯৯ থেকে প্রাপ্ত খবরে উত্তরা ১১ নং সেক্টরের ১০ নং সড়কের ২৪ নম্বর বাসায় যায় ফায়ার সার্ভিসের একটি দল। ভবনের ৪র্থ তলার একটি ফ্লাটের বাথরুমে ওই নারী আটকা পড়েছিলেন।

শফিকুল আরও জানান, ‘আমরা দরজাটি খুলে বাথরুমের ভেতরে যাই এবং দেখতে পাই মহিলাটি বাথরুমের কমোডের পাশে পড়ে আছেন। এমনভাবে সরু জায়গায় পড়ে আছেন যে, তাকে সহজে উদ্ধার করা সম্ভব নয়। তারপর জরুরি উদ্ধার পদ্ধতির মাধ্যমে তাকে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্থান্তর করা হয়।

‘ওই নারী এমনভাবে বাথরুমের সরু জায়গায় আটকে গিয়েছিলেন যে তাকে উদ্ধার করা সহজ ছিল না। আমরা আমাদের কৌশল প্রয়োগ করে ওই নারীকে উদ্ধার করি। ওই নারীর স্বামী আবুল হোসেন বলেন, ‘আমার স্ত্রী রাতে বাথরুমে গিয়ে কমোডের এক পাশ ও দেওয়ালের মধ্যে পড়ে আটকে যান।

আমরা দীর্ঘক্ষণ পরিবারের সবাই মিলে উদ্ধারের চেষ্টা করে ব্যর্থ হই। পরে জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে ফোন দিয়ে ফায়ার সার্ভিসের সহযোগিতা চাই। কিছুক্ষণ পরই ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধারকারী দল এসে আমার স্ত্রীকে সুস্থ অবস্থায় উদ্ধার করে। এজন্য জরুরি সেবা ৯৯৯ ও ফায়ার সার্ভিস কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

This website uses cookies.