মেসির ওপর বেশি নির্ভরতা হবে বিপজ্জনক

প্রথম সকাল ডটকম ডেস্ক: বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে মেসিকে ছাড়া খেলে ২৪ পয়েন্টের মধ্যে মাত্র ৭ পয়েন্ট পেয়েছিল আর্জেন্টিনা।

২০১৬ কোপা আমেরিকার ফাইনালে হারের পর শিরোপা জিততে না পারার আক্ষেপে জাতীয় দল থেকে অবসরেরই ঘোষণা দিয়েছিলেন বার্সার আর্জেন্টাইন সুপারস্টার। এরই মধ্যে শুরু হয়েছিল বিশ্বকাপ বাছাই পর্ব।

মেসি না ফেরা পর্যন্ত আর্জেন্টিনার অবস্থা ছিল তথৈবচ। মেসি ফেরার পরও দলের অবস্থা যখন খুবই খারাপ, তখন কোচ বাউজাকে বাদ দিয়ে আনা হলো হোর্হে সাম্পাওলিকে।

শেষ পর্যন্ত মেসির নৈপুণ্যেই রাশিয়া বিশ্বকাপের টিকিট কেটে নিতে সক্ষম হয় দু’বারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। ইকুয়েডরের বিপক্ষে বাছাই পর্বের শেষ ম্যাচে হ্যাটট্রিক করে মেসিই হলেন বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাকে তোলার নায়ক। তবুও, আর্জেন্টিনার সাবেক তারকা ফুটবলার গ্যাব্রিয়েল বাতিস্তুতা মনে করেন, অতিমাত্রায় মেসি নির্ভরতা হবে আর্জেন্টিনার জন্য খুবই বিপজ্জনক।

তবে বাতিস্তুতার কথাকে কিন্তু নেতিবাচক নয়, ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখতে হবে আপনাকে। বিশ্বকাপের আগে মেসি নির্ভরতা কমিয়ে তিনি দলকে সামষ্টিকতার ওপর গড়ে তোলার দিকেই জোর দিয়েছেন। তিনি কোচ হোর্হে সাম্পাওলিসহ পুরো আর্জেন্টিনাকেই একটা সতর্কবার্তা দিয়ে রেখেছেন। মেসির কোনো সমস্যা হলে যেন দলের কোনো সমস্যা না হয়।

অন্যরা যেন মেসির স্থানটা পূরণ করে নিতে পারে এবং আর্জেন্টিনাকে এগিয়ে নিতে পারে। বাতিগোল নামে খ্যাত বাতিস্তুতার বক্তব্য হচ্ছে, আর্জেন্টিনা দলে সার্জিও আগুয়েরো, গঞ্জালো হিগুয়াইন এবং মাউরো ইকার্দি থেকে পাওলো দিবালারা রয়েছেন। এদের সবাইকে একএকজন মেসি হিসেবে গড়ে তুলতে পারলেই রাশিয়া বিশ্বকাপে নিরাপদ পজিশনে চলে যাবে আর্জেন্টিনা।

আর্জেন্টিনার হয়ে সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় ছিল বাতিস্তুতার নাম। ৫৪ গোল করেছিলেন তিনি। তাকে টপকে গেছেন মেসি। বার্সা তারকার পাশে এখন আর্জেন্টিনার জার্সি গায়ে গোলের সংখ্যা ৬১টি। মেসি সম্পর্কে বাতিস্তুতা বলেন, ‘মেসি এমন একজন খেলোয়াড় যে সব দলের হয়ে খেলতে পারে। আমি অবশ্যই আমার দলে তাকে চাইব; কিন্তু কোন একজন খেলোয়াড়ের উপর নির্ভর করা আমার কাছে অনৈতিক মনে হয়।

আর্জেন্টিনা যে জায়গা থেকে বিশ্বকাপ খেলতে যাচ্ছে, তা থেকে তাদের এটা বোঝা উচিত। একজন খেলোয়াড়ের উপর নির্ভর করাটা আমাদের জন্য খুব বিপজ্জনক হবে। মেসির ওপর অতি নির্ভরতাই সাম্পাওলির জন্য শুধু বড় সমস্যা নয়, আরও অনেক সমস্যা রয়েছে আর্জেন্টিনা দলে। লা আলবিসেলেস্তেদের স্ট্রাইকার পজিশনেই এখনও কেউ নিজেকে সেট করে তুলতে পারেনি।

সার্জিও আগুয়েরো, দারিও বেনেদেত্তো, গঞ্জালো হিগুয়াইন, মাউরো ইকার্দি কিংবা লোতারো মার্টিনেজের মত ফুটবলার থাকার পারও সাম্পাওলিকে সঠিক একজন স্ট্রাইকার বেছে নিতে হবে, যে কি না গোল করতে পারে। এই পজিশনে বাতিস্তুতার প্রথম পছন্দ হিগুয়াইন। গত বিশ্বকাপের ফাইনালে গোল করতে ব্যর্থ হওয়ার পরও হিগুয়াইনকে কেন বেছে নিলেন বাতিগোল?

তিনি বলেন, ‘আমার মতে আর্জেন্টিনার নাম্বার নাইন হবেন হিগুইন। কোচও মনে হয় তেমনটাই ভাবছেন। হিগুয়াইনের উপর অনেক চাপ। তার প্রতিটি শটেই গোল হওয়া চাই। কারণ দলে আরো নাম্বার নাইনে খেলার মতো খেলোয়াড় আছে, যারা গোল করার জন্য মুখিয়ে থাকে। রাশিয়া বিশ্বকাপে ডি গ্রুপে রয়েছে আর্জেন্টিনা। বাকি তিন প্রতিপক্ষ আইসল্যান্ড, ক্রোয়েশিয়া এবং নাইজেরিয়া। একমাত্র ফুটবলার হিসেবে একের অধিক বিশ্বকাপে হ্যাটট্রিক করেছিলেন মেসি। ১৯৯৪ বিশ্বকাপে গ্রিসের বিপক্ষে এবং ১৯৯৮ বিশ্বকাপে জামাইকার বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেছিলেন বাতিগোল।

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *