বিক্ষোভ মিছিলে উত্তাল রাবি ক্যাম্পাস

মো: উমর ফারুক (রাবি): ‘বর্তমানে কোটার পক্ষে যারা রয়েছে তারা এ প্রজন্মের রাজাকার। তারা মেধার বিরুদ্ধে চক্রান্ত করছে। যদি কোটা সংস্কারে পদক্ষেপ না নেওয়া হয় তাহলে ১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর মাধ্যমে যে দূর্গ গড়ে তোলা হয়েছিল, আমরাও সে দূর্গ গড়ে তুলবো।

আমরা স্বাধীনতা বিরোধী বা মেধা বিরোধীদের কাছে মাথা নত করি নাই, করবোও না।’ কোটা সংস্কারের দাবিতে ঢাকায় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উপর হামলা ও অজ্ঞাতনামা ৭০০ জনের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবাদে রোববার সকাল ১০ টায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় বুদ্ধিজীবী চত্ত্বরে সমাবেশে এসব কথা বলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী মাসুদ মোন্নাফ।

আন্দোলনরত শীক্ষার্থীদের উপর পুলিশী হামলা, ৬৩ জনের উপর মামলা, ও অজ্ঞাতনামা ৭০০ জনের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবাদে দেশব্যাপি আন্দোলনের অংশ হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা প্রথমে বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে থেকে এক প্রতিবাদী মিছিল বের করে পরে মিছিলটি  ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ শেষে শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিসৌধে সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য ব্যবস্থা বিভাগের শিক্ষার্থী মো: হালিমের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন সাধারণ ছাত্র পরিষদ রাবি শাখার আহ্বায়ক কমিটির প্রধান মাসুদ মোন্নাফ। সমাবেশে তারা ৫ দফা দাবি তুলে ধরেন। তাদের দাবিগুলো হলো, ‘কোটা ব্যবস্থা ৫৬ থেকে ১০ শতাংশ করা, যোগ্য প্রার্থী পাওয়া না গেলে মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ প্রদান করা, একটি পরিবার থেকে একাধিক প্রার্থীকে কোটায় চাকুরি না দেওয়া, কোটার জন্য বিশেষ সার্কুলার না দেওয়া, চাকুরির ক্ষেত্রে সকলের জন্য অভিন্ন বয়স প্রক্রিয়া প্রণয়ন। এসময় প্রায় সহ¯্রাধিক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

This website uses cookies.