প্রথমবার ম্যারাথনে অংশ নিলেন সৌদির নারীরা

প্রথম সকাল ডটকম ডেস্ক: আর মাত্র তিনদিন পরেই আন্তর্জাতিক নারী দিবস। বিশ্বজুড়ে এগিয়ে যাক নারীরা। দেশের উন্নয়নে তাদের পদযাত্রা অব্যাহত থাকুক।

রক্ষণশীল সৌদি আরবে এতদিন ধরে অনেক কিছুতেই পিছিয়ে ছিলেন নারীরা। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে নারীরাও বেশ কিছু বিষয়ে স্বাধীন হওয়ার পথে এগিয়ে যাচ্ছেন।

এই প্রথমবার সৌদি আরবে নারীদের জন্য ম্যারাথনের আয়োজন করা হয়। রোববার ওই আয়োজনে বহু নারী অংশ নিয়েছেন। রক্ষণশীল দেশটিতে নারীদের খেলাধুলোকে আরও উন্নত করতে আধুনিক চিন্তাধারাকে কাজে লাগানো হচ্ছে।

একশোরও বেশি নারী এই ম্যারাথনে অংশ নিয়েছেন বলে জানানো হয়েছে। রোববার ওই ম্যারাথনের আয়োজন করা হয় আল-আহসাতে। অধিকাংশ নারীই বোরকা পড়ে ম্যারাথনে অংশ নেন। সৌদি আরবে আয়োজিত এই ম্যারাথনে প্রথম হন আল নাসার নামের এক নারী।

তিনি জানান, ২০২০ সালে তিনি টোকিও অলিম্পিকে সৌদি আরবকে প্রতিনিধিত্ব করবেন। ম্যারাথন আয়োজক মালিক আল মৌসা বলেন, ‘ম্যারাথন আয়োজনের কারণই হল দৌড়কে প্রচার করা এবং সুস্থভাবে বাঁচতে দৌড়ানো কতটা স্বাস্থ্যকর তা সকলকে জানানো।

এর আগে ফেব্রুয়ারি মাসের শেষের দিকে রিয়াদ প্রথম আন্তর্জাতিক হাফ ম্যারাথনের সূচনা করে। তবে এই ম্যারাথনে নারীদের উপস্থিতির হার কম থাকায় বেশ কিছু সৌদির বাসিন্দা সামাজিক মাধ্যমে এ বিষয়ে অভিযোগ জানান। সৌদি আরবের স্পোর্টস কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ৬ এপ্রিল পবিত্র শহর মক্কাতে নারীদের আরও একটি ম্যারাথনের আয়োজন করা হবে।

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *