শৈলকুপায় বৃদ্ধের আত্মহত্যা নাকি হত্যা?

মোঃ জাহিদুর রহমান তারিক,ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহের শৈলকুপা মনোহরপুর ইউনিয়নের পাঠানপাড়া গ্রামের উজির মন্ডল (৭৫) নামের এক বৃদ্ধ গলায় ফাঁস নিয়ে আত্মহত্যা করেছে নাকি তাকে পুত্র বধু হত্যা করেছে, এ নিয়ে ধু¤্রজালের সৃষ্টি হয়েছে।

নিহত উজির মন্ডল পাঠানপাড়া গ্রামের মৃত জব্বার মন্ডলের ছেলে। এলাকা বাসীর অভিযোগ তার ছোট পুত্রবধূ সুমি তাকে হত্যা করে মৃতদেহ ঘরের আড়ার সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলিয়ে রাখে।

জানা যায়, উজির মন্ডলের দুই ছেলে মানিক ও মুক্তার। ছোট ছেলে মুক্তার আনসার ব্যাটেলিয়নের চাকুরী সুবাদে বাইরে থাকে। উজির মন্ডল ছোট পুত্রবধূর সংসারে থাকতেন। ছোট পুত্রবধূ সুমী তাকে প্রায় ৫ দিন ঠিকমত খেতে না দেওয়ায় ও গতকাল শ্বসুরে রুমের বিদ্যুৎ লাইন বিচ্ছিন্ন করে দেয়।

এর পর মঙ্গল বার সকালে গলাই ফাঁস দেয়া অবসস্থায় আশপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে শৈলকুপা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষনা করেন। তবে স্থানীয়দের অভিযোগ, উজির আলীর ছোট পুত্রবধূ সুমী তাকে হত্যা করে মৃতদেহ ঘরের আড়ার সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলিয়ে রাখে। শৈলকুপা থানার ওসি তরিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় অপমৃত্যু মামলা দায়ের ও ময়না তদন্তের জন্য মৃতদেহ মর্গে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *