বিশ্বজুড়ে বর্ষবরণ

প্রথম সকাল ডটকম ডেস্ক: রঙে রঙে বিশ্বজুড়ে শুরু হয়েছে বর্ষবরণ। পৃথিবীর অনেক দেশ ও অঞ্চলের মানুষ এরই মধ্যে ২০১৫ সালকে বরণ করে নিয়েছেন। সবচেয়ে আগে বর্ষবরণের ধুম পড়ে ফিজি ও নিউ জিল্যান্ডে। নিউ জিল্যান্ডের অকল্যান্ড টাওয়ার ও স্কাই টাওয়ারে বর্ণিল আলোকচ্ছটার বিস্ফোরণ দেখা যায়। এর কিছু সময় পরই ২০১৫ সালকে বরণ করে নেয় অস্ট্রেলিয়া। মনোহারি আলোর ফোয়ারায় আলোকিত হয়ে ওঠে সিডনির আকাশ। বর্ষবরণের উপলক্ষে বিশ্বে যত জমকালো অনুষ্ঠান হয়, তার মধ্যে সিডনি হারবার ব্রিজের আলোক-উৎসব অন্যতম। নতুন বছরকে স্বাগত জানিয়েছে আলোর খেলায় মেতে ওঠে সিডনি হারবারে জড়ো হওয়া প্রায় ১৬ লাখ মানুষ। বিশ্বের নানা প্রাপ্ত থেকে অসংখ্য মানুষ সিডনি হারবারে বর্ষবরণের উৎসবে যোগ দিয়েছে। বুধবার সকাল থেকেই খোলা আকাশের নিচে, কেউ ছাতা নিয়ে অবস্থান নেয় হারবার ব্রিজের পাশে। সন্ধ্যা হতেই তারা আনন্দে মেতে ওঠে। সেখানে সাতটন আতশবাজি দিয়ে আলোর ফোয়ারা করা হয়েছে। লেজার শোর চোখ-ধাঁধানো উৎসব, আলো নিয়ে আরো কত কী আয়োজন সিডনিতে। বর্ষবরণ উদযাপনে বিশাল প্রস্তুতি নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, চীন, সিঙ্গাপুর। তবে বিশেষভাবে নতুন বছরকে স্বাগত জানানোর প্রস্তুতি নিয়েছে চীন ও সিঙ্গাপুর। চীনে অলিম্পিক পার্কে বর্ণাঢ্য আলোর ঝরণাধারা বয়ে যাবে। অর্থনীতিকে আরো বেশি চাঙ্গা করার প্রত্যয় নিয়ে চীনারা এই উৎসবের আয়োজন করেছে। ৩১ ডিসেম্বর দিনের শেষ ভাগে চীনের ছাত্ররা শুরু করে বর্ষবরণের নানা অনুষ্ঠান। হাজার হাজার শিক্ষার্থী এই অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে সুখ-সমৃদ্ধি কামনায় বিশেষ প্রদর্শনী করে দেখান। হ্যাপি নিউ ইয়ার উপলক্ষে সিঙ্গাপুর বিশেষ আয়োজন করেছে। স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তিকে আলোয় আলোয় ভরিয়ে দেবে সিঙ্গাপুর। এ জন্য রাষ্ট্রীয় পর্যায়ে বিশাল উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। তৈরি করা হয়েছে ভাসমান আলোর জলহৃদ। ভারতসহ এশিয়ার অধিকাংশ দেশে বর্ষবরণের উৎসব পালন করছে। গোটা ইউরোপের আকাশ আজ রাতে ভরে উঠবে আলোয় আলোয়। আফ্রিকা ও আমেরিকায়ও নতুন বছর বরণ করে নেওয়ার নানা আয়োজন। আজ জাপানের আকাশটা আলোকিত থাকবে- তা কে না জানে। স্কটল্যান্ডের এডিনবার্গ ও হোগমানির পথে পথে দেখা গেছে আলোর খেলা। হোগমানির আলোক উৎসব বিশ্বের অন্যতম বর্ষবরণ আলোককর্ম। এ ছাড়া এডিনবার্গে বর্ষবরণে নতুন মাত্রা দেয় ঐতিহ্যবাহী সাংস্কৃতি অনুষ্ঠান। মনোমুগ্ধকর সেই দৃশ্য যে কারো নয়ন জুড়িয়ে দেয়। নিউ ইয়র্কের টাইম স্কয়ারে তৈরি করা হয়েছে বিশাল ফায়ারওয়ার্ক। সেখানকার স্থানীয় সময় রাত ১২টায় সেই আলোয় আলোকিত হবে নিউ ইয়র্কের আকাশ। ভারতের আহমেদাবাদে আয়োজন করা হয়েছে বিশেষ অনুষ্ঠানের। শিশু-কিশোররা বুধবার দিনেই বর্ষবরণ উপলক্ষে পারফর্ম করে।

This website uses cookies.