জেনে নিন জীবনে সুখী হওয়ার মন্ত্র

প্রথম সকাল ডটকম ডেস্ক: এই ছোট্ট জীবনে আমরা সবাই সুখী হতে চাই। আর জীবনে সুখ যেন একটি অলীক বিষয়। অলীক বলার কারণ হল, সুখী সবাই হতে চায় কিন্তু বাস্তবে কয়জন সুখী মানুষ আমরা দেখতে পাই? এর মানে এই না যে সুখী মানুষ নেই পৃথিবীতে, অবশ্যই আছেন। কারণ পৃথিবীর নিয়মটাই এমন যে কিছু মানুষ থাকবে সুখী আর অন্য দিকে কিছু মানুষ থাকবে দুঃখী। তবে সুখ ও দুঃখ মিলিয়েই যখন আমাদের জীবন তখন আমরা যে যে অবস্থায় থাকিনা কেন নিজেকে ও নিজের মনকে শান্ত ও সুখী রাখতে কাজা লাগাতে পারি কিছু সহজ মন্ত্র। প্রতিটি মানুষের জীবনেই অতীত থাকে। তা খারাপও হতে পারে ভালও হতে পারে। কিন্তু যাই হোক না কেন অতীত নিয়ে না ভেবে সামনে এগিয়ে যান। অতীতের কথা ভেবে কেন নিজের বর্তমান জীবনকে নষ্ট করবেন। সুখী হতে হলে অবশ্যই অতীত ভুলে থাকতে হবে। অন্যরা আপনাকে নিয়ে কী ভাবছে তা চিন্তা করার কি কোন প্রয়োজন আছে? এইসব ভাবনা বাদ দিয়ে নিজেকে নিয়ে ভাবুন নিজের মতামতকে গুরুত্ব দিন কীভাবে নিজের জীবনের সবা সমস্যা পিছনে ফেলে সামনে এগিয়ে যাবেন তা চিন্তা করুন। আপনাকে নিয়ে কে কী ভাবছে তা নিয়ে না ভাবলেও চলবে। সময়কে সময় দিন। কারণ সময়ের সাথে সাথে জীবনের সমস্ত ক্ষতও দূর হয়ে যায়। জীবনের কোন ক্ষত চিহ্ন আমাদের চিনিয়ে দেয় কে আমরা, কেন আমাদের জীবনে এত সমস্যা, কি হতে পারে সমস্যার সমাধান। জীবনের ক্ষত চিহ্ন গুলো আমাদের বাধ্য করে আরও শক্ত হতে , জীবনের একটি ভুল অনেক কিছুই শিখিয়ে যায় আমাদের। তাই ভাল থাকতে হলে জীবনের ছোট ছোট ভুলগুলোকেও মাঝে মাঝে গুরুত্ব দিন কারণ সেখানেই থাকে সমস্যার সামাধান। আপনার সুখ আপনার কাছে। অন্য কেউ এর কারণ হতে পারেনা। তবে সব ক্ষেত্রে না মাঝে মাঝে আপনার পাশের কোন একজন মানুষও আপনার সুখের কারণ হয়ে দাড়াতে পারে। কিন্তু যখন আপনি একা তখন নিজেই নিজের সুখ খুঁজে নিন। কারণ তখন আপনার সুখ নষ্ট করার জন্য অন্য কেউ থাকবে না। আমারা কেউই জানিনা আমাদের জীবনে কী আছে। জীবনে কোন কারণে কোন সমস্যায় পড়লে কখনো অন্যকে যেমন দোষ দেয়া ঠিক না, তেমনি আমরা যে অবস্থায় এবং যেভাবেই থাকিনা কেন তা নিয়ে কখনো অন্যের সাথে তুলনা করাও ঠিক না। যখনই নিজেকে অন্যের সাথে তুলনা করবেন তখনই আপনি পিছিয়ে পড়বেন। মানুষ হিসেবে যে আপনাকে সবকিছু জানতে হবে এমন কোন কথা নেই। পৃথিবীতে সব সমস্যার যেমন সমাধান হয় না, তেমনি আপনারও যে সব কিছু সম্পর্কে যে জানা থাকতে হবে এমন কোন নিয়ম নেই। তাই কোন অতিরিক্ত বিষয় নিয়ে চিন্তা করা বাদ দিন, যখন যা হবে জীবনে তাই সহজ ভাবে গ্রহন করুন। আপনার এমন কোন ক্ষমতা নেই যে সেই ক্ষমতা দিয়ে পৃথিবীর সব সমস্যা প্রতিরোধ করবেন। যখন যে পরিস্থিতিতে থাকুন না কেন নিজেকে ঠিক রাখুন, মনে কষ্ট না নিয়ে হাসুন প্রান খুলে। মনকে সবসময় উচ্ছ্বাসিত রাখুন, কারণ হাসিই জানে কীভাবে অন্ধকার জীবনকে আলোকিত করতে হয়। সূত্র- এলিট ডেইলি ও সানন্দাতে প্রকাশিত প্রবন্ধ হতে অনুপ্রাণিত

This website uses cookies.