বিয়ের নামে প্রতারনা

PROTARONAপ্রথম সকাল ডেস্ক: পুরষ্কারের প্রতিশ্রুতি দিয়ে লোকেদের থেকে টাকা লুঠ করার পর এবার বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে টাকা লুঠ করার নয়া ফন্দি এঁটেছে প্রতারকরা৷ এই হাই প্রোফাইল প্রতারক শাদি ডট কম নামের একটি ওয়েবসাইটে এক যুবতীর সঙ্গে কথা আলাপ জমায়৷ এরপর তার কাছ থেকে প্রায় ৭.৫ লক্ষ টাকা নিজের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার করিয়ে নেয়৷ কিছুদিন বাদে সে সম্পর্ক ভেঙে দেয়৷ উত্তর প্রদেশের ইন্দিরানগরে ঘটেছে এই ঘটনা৷ প্রতারণার শিকার মহিলা ইন্দিরানগর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন৷ ইন্দিরানগরের সেক্ট ১২’র বাসিন্দা এক মহিলা নিজের বোনের জন্য শাদি ডট কমের এক ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন দেয়৷ পুলিশ সূত্রে খবর, গত ১৩ জানুযায়ী প্রমোদ লক্ষ্মী নামের এক ব্যক্তি মহিলার মোবাইলে ফোন করে বিয়ের কথা বলে৷ ওই ব্যক্তি নিজেকে বড় ব্যবসায়ী বলে পরিচয় দেয়৷ ওই ব্যাক্তি বিদেশে নিজের ব্যবসা ও অন্য প্রলোভন দেখিয়ে মহিলার পরিবারের সঙ্গে সক্ষতা বাড়াতে শুরু করে৷ বিশেষ ব্যপার হল মহিলার ফোনে প্রমোদের মোবাইল নম্বর দেখা যেত না৷ প্রমোদের বক্তব্য ছিল নম্বর জেনে গেলে অনেক লোক তার সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করবে এতে তার ব্যবসায় প্রভাব পড়তে পারে৷ বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে প্রমোদ মহিলা ও তার বোনকে প্রভাবিত করে৷ এরকিছুদিন বাদে সে ফোন করে জানায় তার এক বন্ধু জেসি গ্রাহাম আমারিকা থেকে এসেছে৷ মুম্বই এয়ারপোর্টে তাকে কাস্টমের আধিকারিকরা আটকে রেখেছেন৷ এর কার তার কাছে ভারতীয় অর্থ নেই৷ প্রমোদ মহিলাকে জানায় সে বাইরে কাজে ব্যস্ত তার বন্ধুর সাহায্য করতে পারছে না৷ এরই মাঝে সে মহিলাকে নিজের অ্যাকাউন্টে ৭.৫ লক্ষ টাকা ট্রান্সফার করে দিতে বলে৷ সে জানায় বিদেশ থেকে ফিরে এসেই সে টাকা ফেরৎ দিয়ে দেবে৷ মহিলা পরিবারের অন্য কাউকে কিছু না জানিয়ে প্রমোদের অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠিয়ে দেয়৷ টাকা পাওয়ার কিছুদিন পর্যন্ত প্রমোদ ফোন করে কথা বলত৷ এরপরেই সে সম্পর্ক ভেঙে দেয়৷ মহিলা ইন্টারনেটের মাধ্যমে প্রমোদের খোঁজ করার চেষ্টা করে কিন্তু সে যোগাযোগ করতে ব্যর্থ হয়৷ এরপরেই মহিলা প্রতারণা কথা বুঝতে পারেন৷ মহিলা ইন্দিরানগর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন৷ পুলিশ সাইবার ক্রাইম সেলের সাহায্যে প্রতারকের খোজ শুরু করেছে৷

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *