এক লাখ টাকা ও মোটরসাইকেল পেলেন সেই কনস্টেবল

প্রথম সকাল ডটকম: কুমিল্লায় ডোবায় পড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী বাসের ২০-২২ জন যাত্রীর জীবন বাঁচানো পুলিশ কনস্টেবল মো. পারভেজ মিয়াকে পুরস্কৃত করল পুলিশ হেডকোয়ার্টার্স।

অসীম সাহসিকতা ও মানবসেবার স্বীকৃতি হিসেবে বাংলাদেশ পুলিশ প্রধান (আইজিপি) এ কে এম শহীদুল হক নিজেই পারভেজের হাতে তুলে দেন নগদ এক লাখ টাকা, ক্রেস্ট এবং ১২৫ সিসির একটি মোটরসাইকেল।

রোববার বেলা সাড়ে ১১টায় পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সের সম্মেলন কক্ষে আইজিপি পারভেজের হাতে এ পুরস্কার তুলে দেন। মোটরসাইকেলের চাবি হস্তান্তর করেন এসিআই মোটরস লিমিটেডের চিফ বিজনেস অফিসার সুব্রত রঞ্জন দাস। এ সময় আইজিপি বলেন, পুলিশ জনগণের কল্যাণে কাজ করে।

জননিরাপত্তা বিধানকালে পুলিশ নিজের জীবন বিসর্জন দিতেও কুণ্ঠাবোধ করে না। তার প্রকৃষ্ট উদাহরণ কনস্টেবল পারভেজ। তিনি পারভেজের মহতী কাজের জন্য তাকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, তার সাহসিকতা পুলিশ সদস্যদের মধ্যে অনুপ্রেরণা ও উৎসাহ জোগাবে।

তিনি প্রত্যেক পুলিশ সদস্যকে মানবিকতায় উদ্বুদ্ধ হয়ে জনসেবায় এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। আইজিপি এসিআই মোটরস লিমিটেডের প্রশংসনীয় উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, সামাজিক দায়িত্ববোধ থেকে এ ধরনের কাজে অন্যান্য বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকেও এগিয়ে আসতে হবে।

উল্লেখ্য, গত ৭ জুলাই (শুক্রবার) সকালে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে কুমিল্লার দাউদকান্দির গৌরীপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায় চাঁদপুরগামী একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ডোবায় পড়ে যায়।

এ সময় দাউদকান্দি হাইওয়ে থানায় কর্মরত কনস্টেবল পারভেজ স্থির থাকতে পারেননি। তিনি সেবার মহানব্রতে উজ্জীবিত হয়ে ডোবার ময়লা-পচা দুর্গন্ধযুক্ত পানিতে ঝাঁপিয়ে পড়েন। নিজের জীবন বাজি রেখে বাসের জানালার কাচ ভেঙে সাত মাসের শিশুসহ ২০-২২ জন যাত্রীর জীবন বাঁচান।

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *