অস্থিতিশীলতায় যুক্তরাষ্ট্র জড়িত : ইরান

প্রথম সকাল ডটকম ডেস্ক: মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ‘প্রতারক রাষ্ট্র’ হিসেবে তেহরানকে উল্লেখ করে যে মন্তব্য করেছিলেন তা বাতিল করে দিয়েছে ইরান। একই সঙ্গে মার্কিন এই প্রেসিডেন্টের ‘স্বৈরাচারী ও সাংঘর্ষিক’ নীতির কারণেই বিশ্ব নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়েছে বলে দাবি করেছে ইরান।

গত নভেম্বরে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় থেকে ইরান এবং যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। জঙ্গি গোষ্ঠীগুলোর প্রধান সমর্থক হিসেবে তেহরানের দিকে প্রায়ই আঙল তোলেন মার্কিন এই প্রেসিডেন্ট।

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বাহরাম কাশেমি বলেন, (ট্রাম্পকে) তার নিজের নির্বিচারী এবং দ্বন্দ্বমূলক নীতি ও কর্মের বিপর্যয় এবং বিরুদ্ধাচারণের কারণ খুঁজতে হবে, একই সঙ্গে এ অঞ্চলে তার অহংকারী, আক্রমণাত্মক এবং দখলকারী জোটের মধ্যে যারা আছে তাদেরও। গত বৃহস্পতিবার ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেন, নতুন নতুন হুমকির উত্থান ঘটছে। আর এই হুমকির পেছনে অর্থায়ন ও সমর্থন আছে দুর্বৃত্তশাসিত উত্তর কোরিয়া, ইরান ও সিরিয়া এবং অন্যান্য দেশের সরকারের।

ইরানের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারা মধ্যপ্রাচ্যে অস্থিতিশীলতা ও হামলার জন্য তেহরানের আঞ্চলিক প্রতিদ্বন্দ্বী মার্কিন মিত্র সৌদি অারবকে দোষারোপ করে আসছে। গত মাসে তেহরানের পার্লামেন্ট ভবনসহ স্পর্শকাতর দুটি স্থানে হামলায় অন্তত ১৮ জনের প্রাণহানি ঘটে। পরে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) ওই হামলার দায় স্বীকার করে। তেহরান ওই হামলার পেছনে রিয়াদ জড়িত বলে দাবি করে। তবে তেহরানের দাবি প্রত্যাখ্যান করেছে রিয়াদ। সূত্র : রয়টার্স।

0 replies

Leave a Reply

Want to join the discussion?
Feel free to contribute!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *